ঢাকা ০২:৩৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪

শিক্ষিকাকে কিল ঘুষি মেরে আহত করলেন সহকারী শিক্ষক

ঝিনাইদহ প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৮:৪৫:২০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ মার্চ ২০২৪ ৯২ বার পড়া হয়েছে

সংগৃহীত

নিউজ ফর জাস্টিস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

Jinaida Teacher :

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার আলামপুর দক্ষিণপাড়া আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শনিবার বিকালে সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্রকে কিল ঘুষি মেরে আহত করেছেন সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির।

বিদ্যালয় চত্বরে শিক্ষিকাকে পেটানোর ঘটনা চেয়ে চেয়ে দেখলো বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা নাজমুন নাহারসহ শিক্ষার্থীরা।

আহত সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্র জানান, স্কুলে প্রায় সময় সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির আমাকে উল্টা পাল্টা কথাবার্তা বলেন। প্রতিবাদ করতে গেলেই আমাকে স্কুল থেকে বের করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে থাকেন। বিকাল ৩টার দিকে স্কুল চত্বরে আমাকে উল্টা পাল্টা কথাবার্তা বলেন সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির। আমি প্রতিবাদ করা মাত্রই আমাকে কিল ঘুষি মেরে আহত করেন তিনি।

সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির জানান, আমি তাকে মেরেছি এটাই। এর থেকে আর বেশি কিছুই বলতে পারবো না। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা নাজমুন নাহার জানান, কি কারণে তাদের মধ্যে এমন ঘটনা ঘটেছে তা আমার জানা নেই। তবে বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্রকে এভাবে মারাটা ঠিক হয়নি। তিনি আরো জানান, বিদ্যালয়ে এসব ঘটনার বিষয়ে আমি উপজেলা শিক্ষা অফিসে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।

উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম জানান, আমি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

/শিল্পী/

 

 

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

শিক্ষিকাকে কিল ঘুষি মেরে আহত করলেন সহকারী শিক্ষক

আপডেট সময় : ০৮:৪৫:২০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ মার্চ ২০২৪

Jinaida Teacher :

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার আলামপুর দক্ষিণপাড়া আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শনিবার বিকালে সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্রকে কিল ঘুষি মেরে আহত করেছেন সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির।

বিদ্যালয় চত্বরে শিক্ষিকাকে পেটানোর ঘটনা চেয়ে চেয়ে দেখলো বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা নাজমুন নাহারসহ শিক্ষার্থীরা।

আহত সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্র জানান, স্কুলে প্রায় সময় সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির আমাকে উল্টা পাল্টা কথাবার্তা বলেন। প্রতিবাদ করতে গেলেই আমাকে স্কুল থেকে বের করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে থাকেন। বিকাল ৩টার দিকে স্কুল চত্বরে আমাকে উল্টা পাল্টা কথাবার্তা বলেন সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির। আমি প্রতিবাদ করা মাত্রই আমাকে কিল ঘুষি মেরে আহত করেন তিনি।

সহকারী শিক্ষক হুমায়ুন কবির জানান, আমি তাকে মেরেছি এটাই। এর থেকে আর বেশি কিছুই বলতে পারবো না। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা নাজমুন নাহার জানান, কি কারণে তাদের মধ্যে এমন ঘটনা ঘটেছে তা আমার জানা নেই। তবে বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষিকা পূবালী মিত্রকে এভাবে মারাটা ঠিক হয়নি। তিনি আরো জানান, বিদ্যালয়ে এসব ঘটনার বিষয়ে আমি উপজেলা শিক্ষা অফিসে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।

উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম জানান, আমি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

/শিল্পী/