ঢাকা ০২:২০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪

যুবলীগ নেতার চোখ উপড়ে ফেলল দুর্বৃত্তরা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:৪৬:১২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২০ মার্চ ২০২৪ ৭০ বার পড়া হয়েছে

সংগৃহীত

নিউজ ফর জাস্টিস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

Lokhipur :
লক্ষ্মীপুরে যুবলীগ নেতা কামাল হোসেনের চোখ উপড়ে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে তাকে প্রথমে সদর হাসপাতাল পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (১৮ মার্চ) রাতে সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নে নন্দীগ্রাম এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত কামাল হোসেন বশিকপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ও পোদ্দার বাজারের ফল ব্যবসায়ী।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, কামাল হোসেন ইফতারের পর বাড়ি থেকে পোদ্দার বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন। নন্দীগ্রাম এলাকায় পৌঁছালে সন্ত্রাসীরা তাকে এলোপাতাড়ি রড দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এক পর্যায়ে রড দিয়ে খুঁচিয়ে তার চোখ উপড়ে ফেলে পালিয়ে যায় তারা। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। তার অবস্থায় আশঙ্কাজনক হওয়ায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

কামাল হোসেন বশিকপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান বাহিনী প্রধান আবুল কাশেম জিহাদীর লোক বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী। এঘটনা পর এলাকায় উত্তোজনা বিরাজ করছে।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. আনোয়ার হোসেন বলেন, কামাল হোসেনের অবস্থায় আশঙ্কাজনক। তার ডান চোখের অবস্থায়সহ মাথায় ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এছাড়া মাথা, নাখ-মুখ ও চোখ দিয়ে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এমদাদুল হক জানান, কামাল হোসেনের সাথে বাজারের এক সার ব্যবসায়ীর মধ্যে দ্বন্ধ চলে আসছে। এর জের ধরে এ ঘটনা ঘটতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। জড়িতদের গ্রেফতারের অভিযান চলছে।

/শিল্পী/

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

যুবলীগ নেতার চোখ উপড়ে ফেলল দুর্বৃত্তরা

আপডেট সময় : ০২:৪৬:১২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২০ মার্চ ২০২৪

Lokhipur :
লক্ষ্মীপুরে যুবলীগ নেতা কামাল হোসেনের চোখ উপড়ে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে তাকে প্রথমে সদর হাসপাতাল পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (১৮ মার্চ) রাতে সদর উপজেলার বশিকপুর ইউনিয়নে নন্দীগ্রাম এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত কামাল হোসেন বশিকপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ও পোদ্দার বাজারের ফল ব্যবসায়ী।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, কামাল হোসেন ইফতারের পর বাড়ি থেকে পোদ্দার বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন। নন্দীগ্রাম এলাকায় পৌঁছালে সন্ত্রাসীরা তাকে এলোপাতাড়ি রড দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এক পর্যায়ে রড দিয়ে খুঁচিয়ে তার চোখ উপড়ে ফেলে পালিয়ে যায় তারা। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। তার অবস্থায় আশঙ্কাজনক হওয়ায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

কামাল হোসেন বশিকপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান বাহিনী প্রধান আবুল কাশেম জিহাদীর লোক বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী। এঘটনা পর এলাকায় উত্তোজনা বিরাজ করছে।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. আনোয়ার হোসেন বলেন, কামাল হোসেনের অবস্থায় আশঙ্কাজনক। তার ডান চোখের অবস্থায়সহ মাথায় ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এছাড়া মাথা, নাখ-মুখ ও চোখ দিয়ে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এমদাদুল হক জানান, কামাল হোসেনের সাথে বাজারের এক সার ব্যবসায়ীর মধ্যে দ্বন্ধ চলে আসছে। এর জের ধরে এ ঘটনা ঘটতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। জড়িতদের গ্রেফতারের অভিযান চলছে।

/শিল্পী/