ঢাকা ০২:২৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪

বিদায় অনুষ্ঠানে ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা

গাজীপুর প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৭:৪৯:৩৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ জুন ২০২৪ ৩১ বার পড়া হয়েছে

ফাইল ফটো

নিউজ ফর জাস্টিস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে আলামিন নামে এক ছাত্রলীগ কর্মীকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার (৬ জুন) গাজীপুরের কালিয়াকৈরের চন্দ্রা এলাকায় মোকদ্দম প্লাজার সামনে দুপুরে এ ঘটনা ঘটেছে।

ওই ঘটনায় কামরুল হাসান নামে এক কর্মীকে কুপিয়ে গুরুতর জখম করা হয়। তাকে সফিপুর তানহা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জানা যায়, বুধবার জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনা মীমাংসার জন্য বৃহস্পতিবার দুপুরে মোকদ্দম প্লাজার সামনে উপস্থিত হলে প্রতিপক্ষের ইমন, হাসান, সবুজ সিকদার ও শাকিব হোসেন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে আলামিন ও কামরুল হাসানের ওপর হামলা চালিয়ে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিলে কর্তব্যরত ডাক্তার আলামিনকে মৃত ঘোষণা করেন। ওই ঘটনায় চন্দ্রা এলাকায় থমথমে পরিবেশ বিরাজ করছে।

কালিয়াকৈর থানার ওসি এএফএম নাসিম বলেছেন, যারা এ ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্তদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে। যে এ ঘটনার সাথে জড়িত তাকে ছাড় দেয়া হবে না।

এম.নাসির/৬

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

বিদায় অনুষ্ঠানে ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা

আপডেট সময় : ০৭:৪৯:৩৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ জুন ২০২৪

 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে আলামিন নামে এক ছাত্রলীগ কর্মীকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার (৬ জুন) গাজীপুরের কালিয়াকৈরের চন্দ্রা এলাকায় মোকদ্দম প্লাজার সামনে দুপুরে এ ঘটনা ঘটেছে।

ওই ঘটনায় কামরুল হাসান নামে এক কর্মীকে কুপিয়ে গুরুতর জখম করা হয়। তাকে সফিপুর তানহা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জানা যায়, বুধবার জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনা মীমাংসার জন্য বৃহস্পতিবার দুপুরে মোকদ্দম প্লাজার সামনে উপস্থিত হলে প্রতিপক্ষের ইমন, হাসান, সবুজ সিকদার ও শাকিব হোসেন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে আলামিন ও কামরুল হাসানের ওপর হামলা চালিয়ে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিলে কর্তব্যরত ডাক্তার আলামিনকে মৃত ঘোষণা করেন। ওই ঘটনায় চন্দ্রা এলাকায় থমথমে পরিবেশ বিরাজ করছে।

কালিয়াকৈর থানার ওসি এএফএম নাসিম বলেছেন, যারা এ ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্তদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে। যে এ ঘটনার সাথে জড়িত তাকে ছাড় দেয়া হবে না।

এম.নাসির/৬