ঢাকা ০২:২২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪

এক মাসে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী বেড়েছে ৪৫ লাখ

ডেস্ক প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৮:৫৭:২১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৭ মে ২০২৪ ৪৩ বার পড়া হয়েছে

দেশে এক মাসে ইন্টারনেট গ্রাহক বাড়লো সাড়ে ৪৩ লাখ

নিউজ ফর জাস্টিস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

Internet subscriber : টানা পাঁচ মাস দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক কমার পর ফেব্রুয়ারি থেকে তা বাড়তে শুরু করে। বছরের দ্বিতীয় মাসে গ্রাহক বেড়েছে ১১ লাখ ৭০ হাজার। বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি) গত মার্চে দেশে ৩.৭৯ মিলিয়ন মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে বলে জানিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ মে) কমিশনের ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়। প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, মার্চ মাসে দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে ১২ কোটি ১২ লাখ ৬০ হাজার। আগের মাসে অর্থাৎ ফেব্রুয়ারিতে গ্রাহক ছিল ১১ কোটি ৭৪ লাখ ৭০ হাজার। সে অনুযায়ী এক মাসের মধ্যে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়েছে ৩৭ লাখ ৯০ হাজার।

ISP এবং PSTN ইন্টারনেট গ্রাহকও বেড়েছে। ফেব্রুয়ারিতে আইএসপি গ্রাহকের সংখ্যা ছিল ১ কোটি ২৮ লাখ ৮০ হাজার। মার্চ মাসে, গ্রাহক সংখ্যা বেড়েছে 560 হাজার। চলতি মাসে আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ কোটি ৩৪ লাখ ৪০ হাজার।

এদিকে দেশে মোট ইন্টারনেট গ্রাহকের মধ্যে মোবাইল ও আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যাও বেড়েছে। মার্চ মাসে দেশে মোট ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় 13.47 মিলিয়নে। এর আগে ফেব্রুয়ারিতে মোট গ্রাহকের সংখ্যা ছিল ১৩ কোটি ৩ লাখ ৫০ হাজার। সেই হিসাবে, এক মাসের ব্যবধানে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ৪৩ লাখ ৫০ হাজার।

জানা গেছে, বিটিআরসি প্রতি মাসে দেশের ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে। এবার একটু দেরিতে মে মাসের ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের তথ্য প্রকাশ করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

এর আগে টানা পাঁচ মাস দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা কমতে দেখা গেছে। ভোক্তাদের অভিযোগ, প্যাকেজ অ্যাডজাস্টের নামে ইন্টারনেটের দাম বাড়ায় মোবাইল অপারেটররা তাদের ব্যবহার কমিয়ে দিয়েছে। সম্প্রতি ইন্টারনেটের দাম বেড়েছে। ফেব্রুয়ারি-মার্চে আরও গ্রাহক হারাবে মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোর আশঙ্কা। তবে বিটিআরসির তথ্যে উল্টো চিত্র দেখা গেছে।

বিটিআরসির তথ্য অনুযায়ী, ২০২৩ সালের আগস্টে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে ১১ কোটি ৯৭ লাখ ৯০ হাজার। এরপর সেপ্টেম্বর থেকে গ্রাহকের সংখ্যা কমতে থাকে। সেপ্টেম্বরে ২০ হাজার গ্রাহক কমে ১১ কোটি ৯৭ লাখ ৭০ হাজার। অক্টোবরে ৩৬০ হাজার গ্রাহক কমে ১১ কোটি ৯৪ লাখ ১০ হাজারে দাঁড়িয়েছে। নভেম্বরে প্রায় ৫ লাখ গ্রাহক কমেছে। ওই মাসে গ্রাহক ছিল ১১ কোটি ৮৯ লাখ ৬০ হাজার। এরপর ডিসেম্বরে তা কমে দাঁড়ায় ১১ লাখ ৮৪ লাখ ৯০ হাজার।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা কমে দাঁড়িয়েছে ১১ কোটি ৬ লাখ ৩০ হাজার। এরপর ফেব্রুয়ারি ও মার্চে টানা দুই মাস মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। একই সঙ্গে আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকও অনেক দিন পর বেড়েছে।

জানতে চাইলে বিটিআরসির মহাপরিচালক (এসএস) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল খলিলুর রহমান বলেন, বিভিন্ন কারণে তা কমতে বা বাড়তে পারে। খরচ ওভাররান নিয়েও প্রশ্ন থাকতে পারে। এছাড়াও আরও বিভিন্ন কারণ রয়েছে। ফেব্রুয়ারিতে গ্রাহক সংখ্যা কিছুটা বেড়েছে। মার্চ মাসে আমরা ভালো অগ্রগতি দেখছি। আসলে, আমরা প্রতি মাসে প্রাপ্ত তথ্য প্রকাশ করি। এখানে লুকানোর কিছু নেই।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

এক মাসে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী বেড়েছে ৪৫ লাখ

আপডেট সময় : ০৮:৫৭:২১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৭ মে ২০২৪

Internet subscriber : টানা পাঁচ মাস দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক কমার পর ফেব্রুয়ারি থেকে তা বাড়তে শুরু করে। বছরের দ্বিতীয় মাসে গ্রাহক বেড়েছে ১১ লাখ ৭০ হাজার। বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি) গত মার্চে দেশে ৩.৭৯ মিলিয়ন মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে বলে জানিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ মে) কমিশনের ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়। প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, মার্চ মাসে দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে ১২ কোটি ১২ লাখ ৬০ হাজার। আগের মাসে অর্থাৎ ফেব্রুয়ারিতে গ্রাহক ছিল ১১ কোটি ৭৪ লাখ ৭০ হাজার। সে অনুযায়ী এক মাসের মধ্যে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়েছে ৩৭ লাখ ৯০ হাজার।

ISP এবং PSTN ইন্টারনেট গ্রাহকও বেড়েছে। ফেব্রুয়ারিতে আইএসপি গ্রাহকের সংখ্যা ছিল ১ কোটি ২৮ লাখ ৮০ হাজার। মার্চ মাসে, গ্রাহক সংখ্যা বেড়েছে 560 হাজার। চলতি মাসে আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ কোটি ৩৪ লাখ ৪০ হাজার।

এদিকে দেশে মোট ইন্টারনেট গ্রাহকের মধ্যে মোবাইল ও আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যাও বেড়েছে। মার্চ মাসে দেশে মোট ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় 13.47 মিলিয়নে। এর আগে ফেব্রুয়ারিতে মোট গ্রাহকের সংখ্যা ছিল ১৩ কোটি ৩ লাখ ৫০ হাজার। সেই হিসাবে, এক মাসের ব্যবধানে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ৪৩ লাখ ৫০ হাজার।

জানা গেছে, বিটিআরসি প্রতি মাসে দেশের ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে। এবার একটু দেরিতে মে মাসের ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের তথ্য প্রকাশ করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

এর আগে টানা পাঁচ মাস দেশে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা কমতে দেখা গেছে। ভোক্তাদের অভিযোগ, প্যাকেজ অ্যাডজাস্টের নামে ইন্টারনেটের দাম বাড়ায় মোবাইল অপারেটররা তাদের ব্যবহার কমিয়ে দিয়েছে। সম্প্রতি ইন্টারনেটের দাম বেড়েছে। ফেব্রুয়ারি-মার্চে আরও গ্রাহক হারাবে মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোর আশঙ্কা। তবে বিটিআরসির তথ্যে উল্টো চিত্র দেখা গেছে।

বিটিআরসির তথ্য অনুযায়ী, ২০২৩ সালের আগস্টে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক বেড়েছে ১১ কোটি ৯৭ লাখ ৯০ হাজার। এরপর সেপ্টেম্বর থেকে গ্রাহকের সংখ্যা কমতে থাকে। সেপ্টেম্বরে ২০ হাজার গ্রাহক কমে ১১ কোটি ৯৭ লাখ ৭০ হাজার। অক্টোবরে ৩৬০ হাজার গ্রাহক কমে ১১ কোটি ৯৪ লাখ ১০ হাজারে দাঁড়িয়েছে। নভেম্বরে প্রায় ৫ লাখ গ্রাহক কমেছে। ওই মাসে গ্রাহক ছিল ১১ কোটি ৮৯ লাখ ৬০ হাজার। এরপর ডিসেম্বরে তা কমে দাঁড়ায় ১১ লাখ ৮৪ লাখ ৯০ হাজার।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের সংখ্যা কমে দাঁড়িয়েছে ১১ কোটি ৬ লাখ ৩০ হাজার। এরপর ফেব্রুয়ারি ও মার্চে টানা দুই মাস মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহক লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। একই সঙ্গে আইএসপি ও পিএসটিএন ইন্টারনেট গ্রাহকও অনেক দিন পর বেড়েছে।

জানতে চাইলে বিটিআরসির মহাপরিচালক (এসএস) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল খলিলুর রহমান বলেন, বিভিন্ন কারণে তা কমতে বা বাড়তে পারে। খরচ ওভাররান নিয়েও প্রশ্ন থাকতে পারে। এছাড়াও আরও বিভিন্ন কারণ রয়েছে। ফেব্রুয়ারিতে গ্রাহক সংখ্যা কিছুটা বেড়েছে। মার্চ মাসে আমরা ভালো অগ্রগতি দেখছি। আসলে, আমরা প্রতি মাসে প্রাপ্ত তথ্য প্রকাশ করি। এখানে লুকানোর কিছু নেই।